রমজান মাসের গুরুত্ব, প্রস্তুতি, তাৎপর্য ও বিধি-নিষেধ গুলো কি কি

রমজান মাসের গুরুত্ব, প্রস্তুতি, তাৎপর্য ও বিধি-নিষেধ   আসসালামুআলাইকুম বন্ধুরা, আরবি বছরের নবম মাস হচ্ছে পবিত্র রমজান মাস। এই মাসে মুসলমান ধর্মাবলম্বীরা রোজা রাখে। রোজা শব্দটি ফারসি। এর আরবি পরিভাষা হচ্ছে সওম, বহুবচনে বলা হয় সিয়াম। সওম অর্থ বিরত থাকা, পরিত্যাগ করা। ইসলামী পরিভাষা সওম হলো আল্লাহর সন্তুটি অর্জনের জন্য সুবহে সাদিক থেকে সূর্যাস্ত পর্যন্ত নিয়তসহকারে পানাহার থেকে বিরত থাকা। রোজা হচ্ছে ইসলামের তৃতীয় স্তম্ভ।

রমজান মাসের গুরুত্ব, প্রস্তুতি, তাৎপর্য ও বিধি-নিষেধ গুলো কি কি

রোজা ফরজ হয় দ্বিতীয় হিজরির শাবান মাসে। এ সম্পর্কে পবিত্র কুরআনে সুরা বাকারার ১৮৩ নম্বর আয়াতে বলা হয়েছে, হে মুমিনগণ! তোমাদের প্রতি রোজা ফরজ করা হয়েছে যেমন ফরজ করা হয়েছিল তোমাদের পূর্ববর্তীদের প্রতি, যাতে তোমরা আল্লাহভীরু হতে পারো, পরহেজগার হতে পারো।
পবিত্র রমজান মাস হলো মুসলমান ধর্মাবলম্বীদের জন্য সবচেয়ে পবিত্রতম মাস। এই মাসের গুরুত্ব অন্যান্য মাসের তুলনায় অনেক বেশি। এছাড়া পবিত্র রমজান মাসে মহানবী হযরত মুহাম্মদ সাল্লাল্লাহু আলাইহি ওয়াসাল্লাম এর উপর পবিত্র কুরআন মাজীদ সম্পূর্ন নাযিল হাওয়াই এর গুরুত্ব আরো বেশি বেড়ে যায়। এছাড়া অধিকাংশ আসমানী কিতাব রমজান মাসে নাযিল হয়।রমজান মাসের গুরুত্ব, প্রস্তুতি, তাৎপর্য ও বিধি-নিষেধ গুলো কি কি

Add Comment

আমাদের নতুন ফেসবুক পেজে লাইক দিয়ে সাথে থাকুনলাইক ফেসবুক
+ +